জেলার খবর

নোয়াখালীতে ১৩ ইউপিতে ভোটগ্রহণ ২১ জুন

নোয়াখালীতে ১৩ ইউপিতে ভোটগ্রহণ ২১ জুন

২১ জুন প্রথম ধাপের স্থগিত ৩৭১টি ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের ভোটগ্রহণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে নির্বাচন কমিশন। সেই সিদ্ধান্ত অনুয়ায়ী নোয়াখালীর সুবর্ণচর ও বিচ্ছিন্ন দ্বীপ হাতিয়া উপজেলার ১৩ ইউনিয়নের ভোটগ্রহণ হবে।

এদিকে নোয়াখালী জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় নোয়াখালী পৌরসভা ও সদরে উপজেলার ৬ ইউনিয়নে ৫ জুন থেকে ১১ জুন পর্যন্ত চলছে এক সপ্তাহের কঠোর লকডাউন।

জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায়, ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের প্রথম ধাপে ভোট হচ্ছে নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার ৬টি ও হাতিয়া উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে। সুবর্ণচর উপজেলার চরবাটা, চরক্লার্ক, চরওয়াপদা, চর আমানউল্যাহ, পূর্বচরবাটা ও মোহাম্মদপুর ইউনিয়ন। হাতিয়া উপজেলায় চরঈশ্বর, চরকিং, তমরদ্দি, সোনাদিয়া, বুড়ির চর, জাহাজমারা ও নিঝুম দ্বীপ ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ হবে।
হাতিয়া উপজেলার নিঝুম দ্বীপ ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ থেকে মনোনীত প্রার্থী মো. দিনাজ উদ্দিন ঢাকা পোস্টকে বলেন, আমি নৌকার প্রার্থী হিসেবে মনোনীত হয়েছি। এখানে থেমে থেমে বৃষ্টি হয়। নির্বাচনের প্রচারণার জন্য ১১ জুন থেকে অনুমতি দেওয়া হয়েছে। অনেক প্রতিকূলতার মাঝেও ভোটারদের সঙ্গে দেখা করার চেষ্টা করছি।

সুবর্ণচর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা বিমলেন্দ কিশোর পাল ঢাকা পোস্টকে বলেন, সুবর্ণচর উপজেলার ৬ ইউনিয়নে নির্বাচন হবে। আগামী ২১ জুন ভোটগ্রহণ হবে। যথাসময়ে নির্বাচন গ্রহণে আমাদের সব প্রস্তুতি রয়েছে।

নোয়াখালী জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা রবিউল হাসান ঢাকা পোস্টকে বলেন, ইউনিয়ন পরিষদের প্রথম ধাপের ভোটগ্রহণ ১১ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। তবে করোনা পরিস্থিতির কারণে সেটি স্থগিত হয়ে যায়। এরপর ৩ জুন নির্বাচন কমিশনের সভায় আগামী ২১ জুন ভোটগ্রহণের দিনক্ষণ নির্ধারণ করা হয়েছে।

নোয়াখালী পৌরসভা ও সদরে চলমান লকডাউনের বিষয়টি নির্বাচন কমিশনকে জানানো হয়েছে। জেলার লকডাউনের চিঠি চট্টগ্রাম বিভাগীয় নির্বাচন কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছিল। তবে রোববার (৬ জুন) নির্বাচন কমিশন চিঠির মাধ্যমে জানিয়েছে ২১ জুন ভোটগ্রহণ হবে।

প্রস্তুতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। আমরা প্রস্তুতি রয়েছি। তবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে প্রচার-প্রচারণা করতে পারবেন প্রার্থীরা। নির্ধারিত তারিখেই ভোটগ্রহণ হবে।

নোয়াখালী জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ খোরশেদ আলম খান ঢাকা পোস্টকে বলেন, নির্বাচন কমিশন যদি সিদ্ধান্ত দেয় ভোটগ্রহণ হবে। সেটির ব্যাপারে সিদ্ধান্ত দেবে নির্বাচন কমিশন। কমিশন যেভাবে সিদ্ধান্ত দেবে, সেভাবেই ভোটগ্রহণ চলবে।

নোটঃ ছবি গুলো হাতিয়া উপজেলার নিঝুম দ্বীপ ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ থেকে মনোনীত প্রার্থী মো. দিনাজ উদ্দিনের

Close
Close

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker